1. successrony@gmail.com : Mehedi Hasan Rony :
  2. arif_rashid@live.com : Arif Rashid : Arif Rashid
  3. meherunnesa3285@gmail.com : Meherun Nesa : Meherun Nesa
মঙ্গলবার, ০৯ অগাস্ট ২০২২, ০৯:৪৬ অপরাহ্ন

গোপালগঞ্জে চাকরি মেলায় ব্যাপাক সাড়া

দিনলিপি নিউজ ডেস্ক
  • আপডেট টাইম : বৃহস্পতিবার, ২৬ ডিসেম্বর, ২০১৯
  • ৪২৬ বার

বৈধ পথে বিদেশ যাওয়া ও নিরাপত্তা বিষয়ে সচেতনতা সৃষ্টির লক্ষ্যে গোপালগঞ্জে অনুষ্ঠিত হচ্ছে চাকরি মেলা। এ মেলার মাধ্যমে চাকরিসহ বিভিন্ন জনশক্তি রপ্তানিকারক প্রতিষ্ঠানের তথ্য সংগ্রহের সুযোগ পাচ্ছে চাকরি প্রত্যাশীরা। এতে ভোগান্তি কমার পাশাপাশি সহজে চাকরির সুযোগ পাবে বলে মনে করছে স্থানীয় প্রশাসন।

জানাগেছে, প্রতিবছর বাংলাদেশ থেকে সৌদি, কুয়েত, কাতারসহ বিভিন্ন দেশে গৃহকর্মী ও শ্রমিক যাচ্ছে। কিন্তু দালালদের মাধ্যমে সঠিক তথ্য, চাকরি আর নিরাপত্তা নিশ্চিত না করেই বিদেশ যাওয়ার কারণে ভোগান্তিতে পড়তে হয় বিদেশ গমনকারীদের। তাই ভোগান্তি কমাতে ও বিদেশ গমনকারীদের কাছে বিভিন্ন তথ্য তুলে ধরতে কারিগরি প্রশিক্ষণ কেন্দ্রে জেলা প্রশাসনের আয়োজনে অনুষ্ঠিত হচ্ছে চাকরি মেলা।

বুধবার দুপুরে এ মেলার উদ্বোধন করেন অতিরিক্ত জেলা প্রশাসক (সার্বিক) কাজী শহীদুল ইসলাম। পরে আলোচনা সভা অনুষ্ঠিত হয়।

এ মেলার মাধ্যমে বেকার যুব ও যুব মহিলারা সরাসরি জনশক্তি রপ্তানিকারক প্রতিষ্ঠানের সাথে সংযোগ স্থাপন করতে পারছে। সেই সাথে দালাল বিহীনভাবে সাশ্রয়ী খরচে ও বৈধভাবে চাকরি নিয়ে বিদেশ যাওয়ার ধারণা পাচ্ছেন।

মেলায় ১৫টি স্টলে জনশক্তি রপ্তানিকারক প্রতিষ্ঠান বিদেশ গমনকারীদের কাছ থেকে সিভি সংগ্রহ করছে। পরে বিভিন্ন চাকরিদাতা প্রতিষ্ঠানের সাথে যোগাযোগ করে দক্ষ জনশক্তি পাঠানোর পাশাপাশি নিরাপত্তার ব্যবস্থা করছে।

চাকরি মেলায় আগত চাকরি প্রত্যাশী জাহাদুর আলম, আমিনুর সরদার জানান, এ মেলার মাধ্যমে সঠিক তথ্য পাওয়ার পাশিপাশি আমরা যারা চাকরি প্রত্যাশী রয়েছি তারা নিরাপত্তা ও চাকরির সুবিধা পাবো এবং দালালদের হাত থেকে রেহাই পাবো। এ ধরনের মেলা আরো বেশি করা হলে বিদেশ গমনেচ্ছুরা প্রতারিত হবে না।

গোপালগঞ্জ কারিগরি প্রশিক্ষণ কেন্দ্রের ভারপ্রাপ্ত অধ্যক্ষ এ কে এম শাহীদুল ইসলাম চৌধুরী বলেন, এই চাকরি মেলার মাধ্যমে বেকার যুব ও যুব মহিলারা কোন কোন দেশে কী কী পেশা বা কর্মের চাহিদা রয়েছে তা নির্নয় করতে পারবে। সে কর্মের বা পেশার জন্য কী যোগ্যতা বা অভিজ্ঞতা বা দক্ষতার প্রয়োজন রয়েছে তাও জানতে পারবে।

গোপালগঞ্জের অতিরিক্ত জেলা প্রশাসক (সার্বিক) কাজী শহিদুল ইসলাম বলেন, বিদেশে বেশি জনশক্তি পাঠানোর পরও দক্ষ না হওয়ার কারণে বিভিন্ন দেশের তুলনায় রেমিটেন্স কম অর্জিত হচ্ছে। ফলে যুব ও যুব মহিলাদের দক্ষ করে তুলে বিদেশ পাঠানোর মূল লক্ষ্য নিয়ে এ মেলার আয়োজন করা হয়েছে। এখান থেকে ট্রেনিং দিয়ে দক্ষ করে পাঠাতে পারলে আগামীতে আমাদের অর্জিতরেমিটেন্স ১০এর উপরে উঠে যাবে।

 

এ জাতীয় আরো সংবাদ