1. successrony@gmail.com : Mehedi Hasan Rony :
  2. arif_rashid@live.com : Arif Rashid : Arif Rashid
  3. meherunnesa3285@gmail.com : Meherun Nesa : Meherun Nesa
  4. rj.nazmul2500@gmail.com : Meherun Nesa : Meherun Nesa
রবিবার, ১৭ অক্টোবর ২০২১, ০৫:৪০ অপরাহ্ন

পুরনো পণ্য কেনার অনলাইন প্ল্যাটফর্ম সোয়্যাপ চালু

দিনলিপি নিউজ ডেস্ক
  • আপডেট টাইম : শনিবার, ২২ ফেব্রুয়ারী, ২০২০
  • ৩৩০ বার

পুরনো পণ্য কেনার দেশীয় অনলাইন প্লাটফর্ম সোয়্যাপ (www.swap.com. bd) ২০ ফ্রেব্রুয়ারি চালু হয়েছে। কোনো তৃতীয় পক্ষ নয়, সোয়াপ কর্তৃপক্ষই কিনে নেবে বিক্রেতার পণ্যটি।

কর্তৃপক্ষ জানায়, ঘরে বসে অথবা অফিসে যেকোনো জায়গা থেকে পোর্টালটিতে নিজের পণ্য আপলোড করে বিক্রি করতে পারবেন।

পণ্য আপলোডের ২৪ ঘণ্টার মধ্যেই কিনে নেবে সোয়্যাপ। সোয়্যাপের প্রধান নির্বাহী কর্মকর্তা মো. পারভেজ হোসেন বলেন, দেশে এ ধরনের সেবা এটিই প্রথম। প্রাথামিকভাবে ১০ ক্যাটাগরির পণ্য কিনবে সোয়্যাপ। তবে অচিরেই ক্যাটাগরিরও সংখ্যা বাড়বে। ক্যাটাগরিগুলো হলো, স্মার্টফোন, গাড়ি, মোটর সাইকেল, ট্যাব, স্মার্ট ওয়াচ, ল্যাপটপ, টিভি, ফ্রিজ, এসি এবং আসবাবপত্র!

সোয়্যাপের প্রধান নির্বাহী কর্মকর্তা মো. পারভেজ হোসেন বলেন, নতুন এ প্ল্যাটফর্মে গ্রাহক সোয়্যাপ অ্যাপ অথবা ওয়েবসাইট ব্যবহার করে দেশের যেকোনো প্রান্তে বসে তার পুরোনো পণ্য বিক্রয় করতে পারবেন।

প্রথমে সোয়্যাপ ওয়েবসাইটে প্রবেশ করে গ্রাহককে পণ্য সম্পর্কে প্রয়োজনীয় তথ্য দিতে হবে। সোয়্যাপের মূল্য নির্ধারক টিম ওই তথ্যের পাশাপাশি পণ্য যাচাই-বাছাই সাপেক্ষে মূল্য নির্ধারণ করবে। গ্রাহক ওই মূল্যে বিক্রয়ে রাজি হলে পণ্যটি প্রদত্ত ঠিকানা থেকে মূল্য পরিশোধ সাপেক্ষে সংগ্রহ করবে সোয়্যাপ।

পুরনো পণ্য বিক্রয়ের পাশাপাশি বিক্রেতাদের জন্য থাকছে নানা সুবিধা। এর মধ্যে রয়েছে বিনিময় (এক্সচেঞ্জ), উপহার কার্ড (গিফট কার্ড) ইত্যাদি। এসব সুবিধার মাধ্যমে গ্রাহক অর্থের পরিবর্তে বিভিন্ন মোবাইল ফোন প্রতিষ্ঠান, ইলেকট্রনিক সামগ্রীর প্রতিষ্ঠান, ই-কমার্স প্ল্যাটফর্ম থেকে প্রয়োজনীয় মূল্য প্রদান করে নতুন পণ্য কিনতে পারবেন।

সোয়্যাপের প্রধান নির্বাহী কর্মকর্তা মো. পারভেজ হোসেন আরও বলেন, সোয়্যাপ এমন একটি প্ল্যাটফর্ম যেখানে গ্রাহক কিছু সহজ ধাপ অনুসরণ করে কয়েক মিনিটেই নিরাপদে এবং নিশ্চিন্তে তার কাছে থাকা পণ্যটি বিক্রয় করতে পারবেন এবং বিভিন্ন সুবিধাও নিতে পারে; এখানে কোনো মধ্যস্থতাকারীর ঝামেলা নেই, হেনেস্তা হওয়ারও শঙ্কা নেই। সারাবিশ্বে ডিজিটাল প্ল্যাটফর্মে পুরোনো পণ্যের বিক্রয় ব্যবসার জনপ্রিয়তা ক্রমান্বয়ে বৃদ্ধি পাচ্ছে।

বিশেষজ্ঞদের মতে, এ ধরনের ব্যবসায় আগামী ৫ বছরে দ্বিগুণ প্রসার ঘটবে। বাংলাদেশে এই ব্যবসার সূচনার মধ্য দিয়ে সোয়্যাপ বাণিজ্য ক্ষেত্রে নতুন সম্ভাবনার দ্বার উন্মোচন করল। সোয়্যাপ দেশের ই-কমার্সকে আরও টেকসই করবে বলে আমরা বিশ্বাস করি। ঠিকানা : www.swap.com. bd

এ জাতীয় আরো সংবাদ