1. successrony@gmail.com : Mehedi Hasan Rony :
  2. arif_rashid@live.com : Arif Rashid : Arif Rashid
  3. meherunnesa3285@gmail.com : Meherun Nesa : Meherun Nesa
মঙ্গলবার, ০৬ ডিসেম্বর ২০২২, ০১:৪৩ অপরাহ্ন
শিরোনাম:
নতুন লুকে ভাইজান বিএনপির দুটি গুণ, ভোট চুরি ও মানুষ খুন : প্রধানমন্ত্রী কোলা ইউনিয়ন আওয়ামী স্বেচ্ছাসেবক লীগের ত্রি-বার্ষিক সম্মেলন অনুষ্ঠিত ছাত্রলীগের কেন্দ্রীয় কমিটির সহ-সম্পাদক হলেন সিরাজদিখানের তুষার সিরাজদিখানে জমির আগাছা পরিস্কারে ব্যস্ত কৃষক! সিরাজদিখানের বালুচরে বেদখল হওয়া সরকারী রাস্তা উদ্ধার! ফুটবল বিশ্বকাপ মঞ্চে লাল সবুজের পতাকা হাতে বাঙালী যুবক! সিরাজদিখানে গভীর রাতে গৃহবধূ প্রেমিকার ঘরে পরকীয়া প্রেমিক পাকরাও, থানায় হস্তান্তর! সিরাজদিখানে বঙ্গবন্ধু ফুটবল টুর্নামেন্টের ২য় সেমিফাইনাল অনুষ্ঠিত অতিরিক্ত টাকা না দিলে ফাইল ছুড়ে ফেলে দেন ভূমি সহকারী কর্মকর্তা আব্দুস সামাদ!

৩৮ দিনের মধ্যে সর্বোচ্চ শনাক্ত

দিনলিপি নিউজ ডেস্ক
  • আপডেট টাইম : সোমবার, ৭ জুন, ২০২১
  • ২৬৪ বার

দেশে গত ২৪ ঘণ্টায় আগের দিনের তুলনায় করোনাভাইরাসে মৃত্যু কমলেও শনাক্ত রোগী বেড়েছে। গতকাল রোববার সকাল আটটা থেকে আজ সোমবার সকাল আটটা পর্যন্ত করোনাভাইরাসে সংক্রমিত ৩০ জনের মৃত্যু হয়েছে। গত ২৪ ঘণ্টায় ১ হাজার ৯৭০ জনের করোনার সংক্রমণ শনাক্ত হয়েছে। যা গত ৩৮ দিনের মধ্যে সর্বোচ্চ।

এর আগে গত ৩০ এপ্রিল ২ হাজার ১৭৭ জনের করোনা শনাক্ত হয়। এরপর এটি সর্বোচ্চ শনাক্ত। আজ সোমবার বিকেলে স্বাস্থ্য অধিদপ্তরের সংবাদ বিজ্ঞপ্তিতে এ তথ্য জানানো হয়েছে। গতকাল রোববার করোনাভাইরাসে সংক্রমিত ৩৮ জনের মৃত্যু হয়। করোনার সংক্রমণ শনাক্ত হয়েছিল ১ হাজার ৬৭৬ জনের।

দেশে এ পর্যন্ত মোট করোনাভাইরাস শনাক্ত রোগীর সংখ্যা দাঁড়িয়েছে ৮ লাখ ১২ হাজার ৯৬০ জন। মোট মৃত্যু হয়েছে ১২ হাজার ৮৬৯ জনের। করোনা থেকে সুস্থ হয়েছেন ৭ লাখ ৫৩ হাজার ২৪০ জন।

গত ২৪ ঘণ্টায় ১৭ হাজার ১৬৯ জনের নমুনা পরীক্ষা করা হয়েছে। পরীক্ষা বিবেচনায় শনাক্তের হার ১১ দশমিক ৪৭ শতাংশ। গত ৪১ দিনের মধ্যে এটি সর্বোচ্চ শনাক্তের হার। বিশ্ব স্বাস্থ্য সংস্থার মানদণ্ড অনুযায়ী, কোনো দেশে পরিস্থিতি নিয়ন্ত্রণে আছে কি না, তা বোঝার একটি নির্দেশক হলো রোগী শনাক্তের হার। কোনো দেশে টানা অন্তত দুই সপ্তাহের বেশি সময় পরীক্ষার বিপরীতে রোগী শনাক্তের হার ৫ শতাংশের নিচে থাকলে পরিস্থিতি নিয়ন্ত্রণে আছে বলে ধরা যায়।

২০১৯ সালের ডিসেম্বরে চীনের উহানে প্রথম নতুন করোনাভাইরাসের সংক্রমণ দেখা দেয়। পরে তা সারা বিশ্বে ছড়িয়ে পড়ে। দেশে প্রথম করোনা সংক্রমণ শনাক্ত হয় গত বছরের ৮ মার্চ। তারপর ধীরে ধীরে বাড়তে থাকে সংক্রমণ। গত বছরের শেষ দিকে এসে সংক্রমণ কমতে থাকে।

এ বছরের মার্চ থেকে করোনার সংক্রমণ আবার বেড়ে যায়। মার্চের প্রথমার্ধেই দৈনিক শনাক্ত রোগীর সংখ্যা হাজারের ওপরে চলে যায়। বাড়তে থাকে মৃত্যুর সংখ্যাও।

এ জাতীয় আরো সংবাদ