1. successrony@gmail.com : Mehedi Hasan Rony :
  2. arif_rashid@live.com : Arif Rashid : Arif Rashid
  3. meherunnesa3285@gmail.com : Meherun Nesa : Meherun Nesa
সোমবার, ৩০ জানুয়ারী ২০২৩, ০৯:১৯ অপরাহ্ন
শিরোনাম:
সিরাজদিখানে অযত্ন অবহেলায় নষ্ট হচ্ছে ভ্রাম্যমান লাইব্রেরী, দেখার কেউ নেউ! জনস্বার্থে দেওয়া স্ট্যাটাসকে কেন্দ্র করে সাংবাদিকের উপর হামলা! তৃণমূল সাংবাদিক মহল ক্ষুব্ধ। সিরাজদিখানে শেখ সাহেব খ্যাত রশিদ মাস্টারের মৃত্যুবার্ষিকী উপলক্ষে স্বরণ সভা! সিরাজদিখানে লাউ গাছ কেটে কৃষকের ক্ষতি সাধনের অভিযোগ! শেখ সাহেব খ্যাত রশিদ মাস্টারের ১৭ তম মৃত্যু বার্ষিকী আজ বিশ্বকাপ ফাইনাল ঘিরে ঢাকায় আইনশৃঙ্খলা বাহিনীর নিরাপত্তা জোরদার! ফাইনালের আগে মেসিকে ছেলের আবেগঘন চিঠি! বিশ্বকাপঃ আজ সবকিছুই লিওনেল মেসি ও আরজেন্টিনার জন্য! ‘সাব -রেজিস্ট্রার কার্যালয়ে জাতীয় পতাকা অবমাননা’ শিরোনামে স্থানীয় দৈনিকে প্রকাশিত সংবাদের প্রতিবাদ ও ব্যাখ্যা সিরাজদিখানে রাজনৈতিক কোন্দলে বিজয় দিবসের শ্রদ্ধা নিবেদনে অনিহা ছাত্রলীগের!

সিরাজদিখানে কৃষি জমির রক্ষায় বিক্ষুব্ধ কৃষকের তান্ডব!

মোহাম্মদ রোমান হাওলাদার
  • আপডেট টাইম : শুক্রবার, ৮ এপ্রিল, ২০২২
  • ৮২ বার

মুন্সিগঞ্জের সিরাজদিখান উপজেলার চরাঞ্চলের কৃষি জমি রক্ষায় মাটি পরিবহণকারী ড্রামট্রাকে আগুন ও ভাঙচুর চালিয়েছে বিক্ষুব্ধ কৃষক। গত বৃহস্পতিবার রাত সাড়ে ১১ টার দিকে উপজেলার লতব্দী ইউনিয়নের রামকৃষ্ণদীর চক থেকে মাটি কেটে ইট ভাটায় পরিবহনের সময় ৬ টি ড্রামট্রাক, ১টি ভেকু ভাঙচুরসহ দুইটি ড্রামট্রাকে আগুন ধরিয়ে দেয় স্থানীয় অর্ধশতাধিত কৃষক। খবর পেয়ে স্থানীয় লতব্দী ইউনিয়ন পরিষদের চেয়ারম্যান হাফেজ মোঃ ফজলুল হক লোকজন নিয়ে ঘটনাস্থলে হাজির হয়ে সকলের সম্মিলিত প্রচেষ্টায় মাটি কাটা বন্ধের প্রতিশ্রুতি দিয়ে কৃষকদের বুঝিয়ে পরিস্থিত নিয়ন্ত্রণে আনেন।

খোঁজ নিয়ে জানা যায়, লতব্দী ইউনিয়নের রামকৃষ্ণদী গ্রামের বরকত, জহির, ইকবাল ও মিজানসহ আরো বেশ কয়েকজন ব্যক্তি রামকৃষ্ণদী গ্রামের ফসলী জমির মাটি কেটে দীর্ঘদিন ধরে চরাঞ্চলের বিভিন্ন ইট ভাটায় বিক্রি করে আসছিলো। প্রশাসন থেকে শুরু করে জণপ্রতিনিধি, সামাজিক সংগঠনসহ সুশীল সমাজের নানা স্তরের মানুষ সভা সমাবেশ মানববন্ধন এমনকি জেল জরিমানা করেও তাদের মাটি কাটা বন্ধ করতে পারে নি। এদিকে স্থানীয় মাটি কাটা বন্ধে প্রশাসনের জোর তৎপরতা থাকা স্বত্বেও থানা পুলিশ ও বিভিন্ন দপ্তরের কিছু অসাধূ কর্মকর্তা কর্মচারীকে টাকা দিয়ে ম্যানেজ করার কারণে মাটি কাটা বন্ধ করাসহ মাটি কাটা সিন্ডিকেটের সদস্যদের আইনের আওতায় আনা যাচ্ছে না মর্মে স্থানীয় কৃষক কর্তৃক একাধিক অভিযোগ রয়েছে।

অন্যদিকে মাটি কাটা বন্ধে কৃষকদের এমন তান্ডবের বিষয়টি সুশীল সমাজের সচেতন মহলের লোকজন অন্য চোখে দেখছেন। তারা বলছেন, মাটি কাটা বন্ধে সিন্ডিকেটের লোকজনকে ধরাশায়ী ও আইনের আওতায় আনতে ব্যর্থ হয়ে ভাড়ায় চালিত ট্রাক ভাঙচুর ও আগুন দিয়ে পুড়িয়ে ব্যক্তিমালিকানা সম্পদের ক্ষতি সাধনের কোন যৌক্তিকতা নেই। কৃষকদের এমন তান্ডবে সিন্ডিকেটের সদস্যদের মাটি পরিবহনে সাময়িক বেক পেতে হলেও প্রকৃতপক্ষে ক্ষতিগ্রস্ত ট্রাকসমূহের মালিকরাই। মাটি কাটা বন্ধে কৃষকদের এমন তান্ডব সন্ত্রাসী কর্মকান্ড ছাড়া আর কিছুই নয়। গতরাতে সামাজিক যোগাযোগ মাধ্যমে গাড়ি ভাঙচুর ও অগ্নিসংযোগের ছবি প্রকাশিত হওয়ার পর থেকে মিশ্র প্রতিক্রিয়া দেখা দেয়। আইনকে নিজের হাতে তুলে নেয়ার মানসিকতা পরিহার করার আহ্বান জানান অনেকেই। এধরনের সন্ত্রাসী কর্মকাণ্ডের নিন্দা জানিয়ে সামাজিক যোগাযোগ মাধ্যমে অনেকেই পোস্ট দেন।

কৃষি জমি রক্ষায় গঠিত লতব্দী-বালুচর সমন্বয় পরিষদের বালুচর ইউনিয়ন পরিষদের চেয়ারম্যান মোঃ আওলাদ হোসেন বলেন, আমি এ ব্যপারে জানি না। না জেনে আমি কোন মন্তব্য করতে পারবো না। লতব্দী ইউনিয়ন পরিষদের চেয়ারম্যান হাফেজ মোঃ ফজলুল হক ঘটনার সত্যত্যা নিশ্চিত করে বলেন, স্থানীয় কৃষকরা তাদের ফসলী জমির মাটি কাটায় বিক্ষুব্ধ হয়ে মাটি পরিবহ গাড়ি ভাঙচুর ও পুড়িয়ে দেয়। খবর পেয়ে সেখানে যাওয়ার আগেই ছয়টি ট্রাক ও একটি ভেকু ভাঙচুরসহ দুইটি গাড়ি পুরিয়ে দেয় তারা। পরে আমরা তাদেরকে বুঝিয়ে নিয়ে আসি।

এ জাতীয় আরো সংবাদ